টাকার জন্য ব্যবসায়ী বন্ধুকে কেটে ৩ টুকরো: মূল আসামি গ্রেফতার

46

রাজধানীর দক্ষিণখান এলাকার ব্যবসায়ী হেলাল উদ্দিনকে হত্যা করে লাশ তিন টুকরো করার ঘটনায় দায়ের করা মামলার মূল আসামি রূপম সরকারকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)।

রোববার দিবাগত রাতে তাকে গ্রেফতার করা হয়। আজ সোমবার সকালে ডিএমপি থেকে পাঠানো এক খুদেবার্তায় এ তথ্য জানানো হয়। গ্রেফতার রূপম হেলালের বন্ধু।

খুদেবার্তায় জানানো হয়, রাজধানীর দক্ষিণখান থানা এলাকায় তিন টুকরো লাশ উদ্ধারের ঘটনার মূল আসামিকে গ্রেফতার করেছে ডিবি। বেলা সাড়ে ১১টায় ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে এ ব্যাপারে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।

আরও পড়তে পারেন :  শাহেদের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

এর আগে ১৫ জুন হেলাল নামে ওই তরুণ ব্যবসায়ীর মরদেহের দুই অংশ দক্ষিণখান ও বিমানবন্দর এলাকা থেকে উদ্ধার করা হয়। পর দিন দক্ষিণখানের একটি খালি প্লট থেকে উদ্ধার করা হয় হেলালের মাথা। ঘটনার পর দিন হেলালের বড় ভাই মো. হোজায়ফা বাদী হয়ে দক্ষিণখান থানায় অজ্ঞাত পরিচয় কয়েকজনকে আসামি করে মামলা করেন।

এ ঘটনায় ইতিমধ্যে নিহত হেলালের বন্ধু চার্লস ও রূপম সরকারের স্ত্রী শাহীনা আক্তার ওরফে মনি সরকার (২৪) ও রূপমের শাশুড়ি রাশিদা আক্তারকে (৪৮) গ্রেফতার করা হয়েছে। তারা আদালতে হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকার বিষয়ে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

আরও পড়তে পারেন :  রিজেন্ট গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মাসুদ পারভেজ গ্রেফতার

রাজধানীর উত্তরা ও আবদুল্লাহপুর থেকে গ্রেফতারের পর তাদের আদালতে সোপর্দ করা হলে হত্যার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেন তারা। স্বীকারোক্তিতে উঠে আসে, নগদ টাকা হাতিয়ে নেয়াই ছিল হত্যার নেপথ্যের কারণ।

কোরআনে হাফেজ হেলালের বাড়ি পিরোজপুর জেলার নেসারাবাদ থানার দইহাঁড়ি গ্রামে। মাদ্রাসায় পড়াশোনার পাশাপাশি তিনি দক্ষিণখানের আজমপুরে মোবাইল ফোন রিচার্জের ব্যবসা করতেন।

বিনিয়োগ বার্তা//এল//

 

আপনার মতামত দিন :

উত্তর দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here