চট্টগ্রামে ভারতীয় শিক্ষার্থীকে খুনের এক সপ্তাহ পর দাফন

0
11

নিজস্ব প্রতিবেদক, বিনিয়োগ বার্তা:

সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশের বন্দর নগরী চট্টগ্রামে মো. আতিফ শেখ নামে ভারতীয় শিক্ষার্থী খুনের এক সপ্তাহ পর তার বাবা মায়ের সম্মতিতে নগরীর আকবর শাহ কবরস্থানে দাফন করা হয়। শুক্রবার জুমার নামাজের পর জানাজা শেষে আতিফকে দাফন করা হয়।

এর আগে আতিফের মা-বাবা ছেলের মৃত্যুর খবর শুনে ভারত থেকে চট্টগ্রামে ছুটে আসেন। শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে আতিফের মরদেহ তার মা-বাবার কাছে হস্তান্তর করে আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলাম।

আতিফের মা-বাবা ভারত থেকে এলেও ছেলের মরদেহ কেন নিজ দেশে নিয়ে যাননি, সে সম্পর্কে তারা স্পষ্ট কিছু বলেননি বলে জানিয়েছে পুলিশ। তবে ছেলে হত্যার সুষ্ঠু তদন্ত ও বিচার চেয়েছেন।

এদিকে, আঞ্জুমান মুফিদুল ইসলামের কাছ থেকে ছেলের মরদেহ নেয়ার সময় আতিফের বাবা আবদুল খালেক শেখ ও মা ফারিজোতান শেখ সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলতে রাজি হননি।

উল্লেখ্য গত ১৪ জুলাই রাতে নগরীর লেকভিউ সোসাইটির একটি আবাসিক ভবনের পঞ্চম তলার ফ্ল্যাটে ছুরিকাঘাতে খুন হন আতিফ।

পরে একই কক্ষ থেকে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় তার সহপাঠী মাইসনাম উইনসন সিংকে উদ্ধার করা হয়। তারা উভয়ই ইউএসটিসির এমবিবিএস চতুর্থ বর্ষের ছাত্র ছিলেন।

সূত্র জানায়, তিন কক্ষের ওই ফ্ল্যাটে ইউএসটিসির চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী গুরঙ্গ নিরাজ ও তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী জোসনা তম্বুরাম থাকতেন। ১৪ জুলাই রাতে তাদের ৫ বন্ধু সেখানে আসেন। সাড়ে ১১টায় তারা চলে যাওয়ার পর খুনের ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় আতিফের সহপাঠী গুরঙ্গ নিরাজকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রোববার তার ১০ দিনের রিমান্ড আবেদনের শুনানি হতে পারে।

এদিকে, নগরীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন উইনসন। তিনি সুস্থ হয়ে উঠলে ঘটনা সম্পর্কে জানা যাবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

প্রতিবেদক/পারভেজ আবেদীন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here