ইরানে ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত আটক, অতঃপর…

যুক্তরাজ্যের পররাষ্ট্র দপ্তর থেকে শনিবার জানানো হয়েছে যে, ইরানে নিযুক্ত যুক্তরাজ্যের রাষ্ট্রদূতকে আটক করে ইরান। আটকের তিন ঘন্টা পর তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়। এ আটকের ঘটনাকে ‘আন্তর্জাতিক আইনের চূড়ান্ত লঙ্ঘন’ বলে অভিহিত করা হয়।

ইরানের সংবাদ মাধ্যম পার্সটুডে জানায়, ইরানের রাজধানী তেহরানের কাছে ইউক্রেনের একটি যাত্রীবাহী বিমান বিধ্বস্ত হওয়ার ঘটনায় নিহতদের প্রতি শোক ও সমবেদনা জানিয়ে শনিবার বিকেলে তেহরানের আমিরকাবির বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে একটি সভা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সঙ্গে সমাবেশকারীদের ধাওয়া-পাল্টাধাওয়ার ঘটনা ঘটে।

এ সময় ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতকে সমাবেশকারীদের মধ্যে পাওয়া যায়। ইরানের নিরাপত্তাবাহিনীর দাবি সমাবেশকারীদের বিক্ষোভ করার জন্য উসকে দিয়েছিলেন তিনি। এ কারণে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়।

উল্লেখ্য, গত বুধবার ৮ জানুয়ারি ভোররাতে ইউক্রেনের একটি যাত্রীবাহী বিমান তেহরানের ইমাম খোমেনী (রহ.) আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে উড্ডয়নের কিছুক্ষণ পর বিধ্বস্ত হয়। এ ঘটনায় বিমানটির ১৭৬ আরোহীর সবাই প্রাণ হারান।

শনিবার ইরানের সশস্ত্র বাহিনী সকালে এক বিবৃতিতে জানায়, মার্কিন ক্ষেপণাস্ত্র মনে করে ভুলবশত যাত্রীবাহী বিমানটিতে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করার কারণে এটি ভূপাতিত হয়েছে।

//এস//

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *